শিশু -শম্পা সাহা

 

[post-views]

 

[printfriendly]

 

[smbtoolbar]

 

আমি নারীবাদী
ভয়ংকর রকম নারীবাদী
তাই কখনো পুরুষকে শত্রু ভাবি না
প্রতিদ্বন্ধী ভাবি
কখনো অত্যাচারী ভাবি না
অসহায় ভাবি
যে নিজের অক্ষমতা দুর্বলের অত্যাচারে
শানিত করে প্রখরতায়
পুরুষ কখনো আমার প্রভু নয় স্বামী নয়
বন্ধু বা অর্ধাঙ্গ
হ্যাঁ আমি অর্ধাঙ্গীনী হলে সে তো তাই হয়
দাঁত নখ বের করা পুরুষদের দেখে
আঙুল তুলি না কখনো
আহা রে! শান্তি তে যে সুখ
লালনে যে প্রাপ্তি
আশ্রয়দাত্রী হিসেবে যে মহার্ঘ্য অনুভব
সে যে বঞ্চিত তাতে
অসহায় মানুষকে বুকে টেনে চোখের জল মোছাতে
কি যে ভালো লাগে, সে জানে না তা
নারীকে নিরক্ষর রেখে সমাজ এগিয়ে নিয়ে যাবার যে একলা  দায়ভার তার
বোঝে না তা
এক পক্ষ কে দমিয়ে রেখে যে নৃশংস আমেজ
পাশাপাশি বসে ডোবা সূর্য সাক্ষী রেখে খাওয়া ভাগাভাগি চা
সে যে আরো স্বর্গীয়
বেচারা পুরুষ, বুঝলো না তা ও
স্বামী হতে গিয়ে প্রভু হতে গিয়ে
প্রিয় হতেই গেলো ভুলে
তাকে শত্রু ভেবো না
অবুঝ ভাবো
তাকে অত্যাচারী ভেবো না
অসহায় ভাবো
সে যে বড়ই বোকা
নারীর জন্যই সে যে পৃথিবীর মাঠে
নারীর আদরে সে যে লালিত
বেচারা যে স্বামী হতে পারে প্রভু হতে পারে
এক নারীর প্রবল সাহসে যত্নে আদরে
যে নিজের উৎস কে ভুলে যায়
সে যে বড় দুর্ভাগা
তাকে বুকে টেনে নাও
তোমার মাতৃরূপের কাছে
সে নেহাৎই শিশু।

Shampa saha

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top