মগজের ওজন – মুক্তি দাশ

মগজের ওজন – মুক্তি দাশ

  • Post category:প্রবন্ধ
  • Post comments:0 Comments
  • Post last modified:December 13, 2020
  • Reading time:1 mins read

 

পরীক্ষায় ছেলেমেয়েদের রেজাল্ট একটু এদিক-ওদিক হলে প্রায়শই বাবা-মায়েরা আশাভঙ্গজনিত মনোবেদনায় ভুগে থাকেন অপেক্ষাকৃত মেধাবী ছাত্রছাত্রীদের সংগে তুলনা করে তাঁরা আপন সন্তানদের হামেশাই এই বলে অভিহিত করেন যে, ঈশ্বর বা বিধাতা যখন সব মানুষেরই সমপরিমাণ বুদ্ধি বা মগজ দিয়ে পৃথিবীতে পাঠিয়েছেন তখন তাঁদের ছেলেমেয়েরা পরীক্ষা নামক প্রতিযোগিতায় কেন পি্ছিয়ে পড়বে? যেন তাঁরা মানুষের মাথায় মগজ বা ঘিলুর অবস্থান ও পরিমাণ সম্পর্কে সম্পূর্ণ ওয়াকিবহাল। যেন তাঁরা কত মস্তিষ্ক-বিশারদ।

 –
কিন্তু তাঁদের জেনে রাখা উচিৎ যে, মানুষের মস্তক নামক আধারে মগজ প্রদানের ব্যাপারে বিধাতার বৈষম্যমূলক নীতির চালটা এ-যুগের মানুষ ধরে ফেলেছে। দেখা গেছে, একজন সাধারণ বুদ্ধিসম্পন্ন মানুষের মগজের পরিমাণ ও একজন প্রতিভাধর ব্যক্তির মগজের পরিমাণের মধ্যে যথেষ্ট তারতম্য রয়েছে।
 –
একজন সাধারণ বুদ্ধিসম্পন্ন মানুষের মস্তকস্থিত মগজ বা ঘিলুর পরিমাণ যেখানে গড়ে ঊনপঞ্চাশ আউন্স থাকার কথা, সেখানে লর্ড বায়রণের মতো বিশ্ববন্দিত ইংরেজ কবির মগজের ওজন বিরাশি দশমিক দুই পাঁচ আউন্স। অপরদিকে চুয়াত্তর আউন্স পরিমাণ মগজ নিয়ে রুশ ঔপন্যাসিক ইভান তুর্গানেভ বিশ্বে সমাদৃত হয়েছেন। রুশ নেতা লিওন ট্রটস্কির ঘিলুর পরিমাণ ছিল ছাপান্ন আউন্স। আমেরিকান অভিনেত্রী মেরিলিন মনরো-র নাম শুনলে এখনও অনেক যুবকের হৃৎকম্প শুরু হয়ে যায়। কিন্তু তাঁর মগজ সম্পর্কে ক’জন আর হদিশ রাখে? সারা বিশ্বে আলোড়ন সৃষ্টিকারী এই মার্কিনী অভিনেত্রীর মগজের ওজন পঞ্চাশ দশমিক সাত নয় আউন্স। স্বাভাবিকের তুলনায় কিঞ্চিৎ বেশি।
 –
তবে স্বাভাবিকের তুলনায় কম ওজনের মগজের অধিকারী হয়েও বিশ্বে প্রভূত খ্যাতি অর্জন করতে সক্ষম হয়েছেন – এরকম ব্যতিক্রমী নজিরও বিরল নয়। ফরাসি লেখক আন্তোলে ফ্রান্স তাঁদের মধ্যে অন্যতম। তাঁর মগজের ওজন মাত্র পঁয়ত্রিশ আউন্স। স্বাভাবিকের তুলনায় চোদ্দ আউন্স কম। তাতে কী-ই বা আসে যায়! তাতেই তিনি তাঁর সৃষ্টকর্ম দ্বারা পৃথিবীকে একেবারে তাক লাগিয়ে দিয়েছেন।
 –
তার মানে, এটাই প্রমাণিত হয় যে, মগজের পরিমাণ স্বাভাবিকের নিম্নসীমায় থাকলেও নিজস্ব অধ্যবসায় ও নিরবচ্ছিন্ন একাগ্র সাধনার দ্বারা তার উর্বরাশক্তিকে বাড়িয়ে তোলা যায় – যা একজন মানুষকে সাধারণের পর্যায় থেকে উন্নীত করে এবং দিতে পারে অঢেল যশ ও প্রতিপত্তি।

মুক্তি দাশ

মুক্তি দাশ
১৩৫, অঘোর সরণী
রাজপুর
কলকাতা-৭০০১৪৯
Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply