পরিযায়ী পাখি – মোহনা মজুমদার

মোহনা মজুমদার

পিছু ফিরে চাইলে পড়ে থাকতে দেখি মৃত বালিয়াড়ির স্তূপ ; সেই স্তূপের মাঝ বরাবর এক দিগন্ত বিস্তৃত পথ…যার শেষ প্রান্তে মরিচীকা আর রামধনুরা হাত ধরাধরি করে খেলা করে ..গোধূলির রাঙা আলোয় আজ রঙিন হয়েছে সে পথ ।

যতোবার মনে হয়েছে এগিয়ে চলি,তুমি হাত ধরে টেনে তোমার বুকের অসীম স্নিগ্ধতায় আমায় আশ্রয় দিয়েছো ,আমি আবার হারিয়েছি তোমার রন্ধ্রে রন্ধ্রে ; শাখা প্রশাখা বিস্তার করে তোমায় আঁচড়ে কামড়ে আরও আরও আঁকড়ে ধরতে চেয়েছি ।

আর যতোবার আঁকড়ে ধরতে চেয়েছি ; সেই শেকলের জালে তোমার দমবন্ধ হয়েছে ; যে বৃক্ষ এক সময় ছায়া দিতে চেয়েছে ,অক্সিজেন দিতে চেয়েছে ; সে নিজেই যে কখন অস্তিত্বের সংকটে খুঁজে বেড়িয়েছে এক ফালি আলো..ভালোবাসা এমনই এক পরিযায়ী পাখি ; আজ যে ঘর আলো করে এসেছে ,কাল সে থাকবে না, এটাই ভবিতব্য জেনেও মানুষ মায়ায় জড়ায় ।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *